বরিশাল নিউজ ডেস্ক।। ফেসবুক-টুইটারসহ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অপপ্রচার চালিয়ে নির্বাচন বানচালের ষড়যন্ত্র রুখতে ২৪ ঘণ্টা মনিটরিংয়ের জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। এক্ষেত্রে অপরাধীর বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনসহ প্রচলিত আইনে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশনাও দেওয়া হয়। ফেইক আইডি থেকে প্রোপাগান্ডা চালালে তাদের চিহ্নিত করে অপপ্রচারকারীদের বিরুদ্ধে বিদ্যমান আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানায় নির্বাচন কমিশন।
নির্বাচন কমিশন সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ সোমবার (২৬ নভেম্বর) নির্বাচন ভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে এ নির্দেশনার কথা জানান।

তিনি আরো বলেন, ‘এক্ষেত্রে মোবাইল অপারেটর, নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি, এনটিএমসি এবং পুলিশের সাইবার ক্রাইম ইউনিট রাউন্ড দ্য ক্লক (সারাক্ষণ) মনিটরিং করবে। প্রয়োজনের আমাদের সঙ্গে তারা সার্বক্ষণিক অ্যাটাচড থাকবে। এতে আমরা ঘটনার সঙ্গে সঙ্গে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দিতে পারবো।’
সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে সচিব বলেন, ‘সোশ্যাল মিডিয়া কোনোভাবেই বন্ধ করা যাবে না বলে মত দিয়েছে নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসি। যারা গুজব ছড়াবে, সহিংসতা ও অপপ্রচার ছড়াবে তাদের বিষয়ে এনটিএমসি, বিটিআরসি ও আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সাইবার ক্রাইম ইউনিট মনিটরিং করবে। এক্ষেত্রে ইসিকে জানিয়েই দায়ীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

এ সময় ইসির অতিরিক্ত সচিব মোখলেসুর রহমান, যুগ্ম-সচিব (আইন) সেলিম মিয়া, যুগ্ম-সচিব এসএম আসাদুজ্জামান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি), ন্যাশনাল টেলিকমিউনিকেশন মনিটরিং সেন্টার (এনটিএমসি), টেলিটক বাংলাদেশ, গ্রামীণফোন, বাংলালিংক, রবি ও এয়ারটেলের শীর্ষ কর্মকর্তাদের নিয়ে বৈঠক করেন ইসি সচিব।
বরিশাল নিউজ/এমএম হাসান