পটুয়াখালীর পায়রা বন্দরে ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারগুলোক প্রশিক্ষণ-বরিশাল নিউজ

মিলন কর্মকার রাজু,কলাপাড়া (পটুয়াখালী)।। পটুয়াখালীর পায়রা বন্দরে ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে স্থায়ীভাবে পূর্ণবাসন করা হয়েছিল আগেই। এবার তাদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে স্বাবলম্বী করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। পটুয়াখালীর কলাপাড়ার লালুয়া ইউনিয়নের হাটখোলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে বৃহস্পতিবার সকাল ১১টার দিকে দ্বিতীয় ধাপের এ প্রশিক্ষণ কার্যক্রম উদ্বোধণ করেন পায়রা বন্দরের উপ সচিব ও যুগ্ম পরিচালক(এষ্টেট) খন্দকার নুরুল হক।

এ প্রশিক্ষণে অংশ নিচ্ছেন ৬৬৬ জন। তাদের ছয়টি ট্রেডে হাসঁ-মুরগী,গাভী পালন ও মোটাতাজাকরণ, উন্নত পদ্ধতিতে মৎস্যচাষ ও হাঁস-মুরগীর খাবার তৈরি বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।
 টিম লিডার জেবা আফরোজা বলেন, জমি অধিগ্রহনে যেসব পরিবার ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে সেসব পরিবারের সদস্যরা যাতে বিকল্প আয়ের পথ তৈরি করতে পারে এজন্য এবারই বাংলাদেশ সরকার তাদের স্বাবলম্বী করার উদ্যোগ নিয়েছে।

কলাপাড়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মুনিবুর রহমান বলেন, সরকার এ উদ্যোগ নিয়েছে যাতে তারা কর্মক্ষম হয়।

পটুয়াখালী ভূমি অধিগ্রহণ কর্মকর্তা গকুল চন্দ্র কবিরাজ বলেন, ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারকে সরকার তিনগুন জমির মূল্য পরিশোধ করছে।

পায়রা বন্দরের উপ সচিব ও যুগ্ম পরিচালক(এষ্টেট) খন্দকার নুরুল হক বলেন, এ প্রশিক্ষণ খুবই সহজ। প্রশিক্ষণ শেষে তাদের বিভিন্ন সরকারি দপ্তরে ঋণ সুবিধা আছে। এতে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের সদস্যরা কেউ বেকার থাকবে না।

উল্লেখ্য,পায়রা বন্দর কর্তৃপক্ষের সহযোগিতায় ও ডরপ এর উদ্যোগে পায়রা বন্দরে ভূমি অধিগ্রহণে ক্ষতিগ্রস্থ ৪২০০ পরিবারকে প্রশিক্ষণের মাধ্যমে জীবনযাত্রার মান উন্নয়নের পাশাপাশি কর্মমূখী করার উদ্যোগ গ্রহন করেছে সরকার। ইতিমধ্যে প্রথম ধাপে ১১৩৪ জনকে প্রশিক্ষণ দেয়া হয় এবং দ্বিতীয় ধাপে ৬৬৬ জনের প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরু হয়েছে।
বরিশাল নিউজ/কলাপাড়া