বরিশাল নিউজ ডেস্ক।। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ১১ মার্চের কেন্দ্রীয় ছাত্র সংসদ (ডাকসু) নির্বাচনে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ জয়লাভ করবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য তোফায়েল আহমেদ এমপি ।
বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে শনিবার বাংলাদেশ ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আশাবাদ ব্যক্ত করেন।
ডাকসু’র সাবেক ভিপি তোফায়েল আহমেদ বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি ডাকসু নির্বাচনে ছাত্রলীগ জয়লাভ করবে। কারণ এখন তারা ঐক্যবদ্ধ রয়েছে। তারা ১৯৬৯ সালে গণঅভ্যুত্থানে এবং দেশের সকল গণতান্ত্রিক আন্দোলনে নেতৃত্ব দান করেছে।’
তিনি বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাংলাদেশ ছাত্রলীগ প্রতিষ্ঠার মাধ্যমে স্বাধীনতার বীজ বপন করেছিলেন। তিনি ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত স্বাধীন একটি দেশের স্বপ্ন দেখেছিলেন।
তোফায়েল বলেন, বঙ্গবন্ধু স্বাধীন ও সার্বভৌম বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠা করেছিলেন এবং তাঁর কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশ থেকে দারিদ্র্যতার মূলোৎপাটন করবেন।
বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি রেজওয়ানুল হক চৌধুরী শোভন সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন এবং পরিচালনা করেন সাধারণ সম্পাদক গোলাম রাব্বানী।
সমাবেশে ছাত্রলীগের সাবেক ও বর্তমান নেতারা অংশ নেন। সমাবেশ শেষে বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের সামনে থেকে একটি বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের করা হয়। শোভাযাত্রাটি শাহবাগ, মৎস্য ভবন, জাতীয় প্রেসক্লাব ও পুরানা পল্টন মোড় হয়ে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের আওয়ামী লীগ কার্যালয়ের সামনে গিয়ে শেষ হয়।
বাংলাদেশ ছাত্রলীগ ১৯৪৮ সালের ৪ জানুয়ারি পূর্ব পাকিস্তান ছাত্রলীগ নামে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল। তখন বঙ্গবন্ধু ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের ছাত্র ছিলেন। ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলন, ১৯৬৯ সালের গণঅভ্যুত্থান, ১৯৭১ সালের মহান মুক্তিযুদ্ধ এবং ১৯৯০ সালের স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে নেতৃত্ব দেয় বাংলাদেশ ছাত্রলীগ।
-বাসস